একটি NID কার্ড দিয়ে দুইটি বিকাশ,  নগদ,  রকেট একাউন্ট খোলার উপায়, কিভাবে !!

মোবাইল ব্যাংকিংয়ের সুবাদে একাধিক বিকাশ একাউন্ট প্রয়োজন হয় তাই জেনে নিন একটি NID কার্ড দিয়ে দুইটি বিকাশ একাউন্ট খোলার উপায় সম্পর্কে।

সাধারণত মোবাইল ব্যাংকিংয়ের জন্য বিভিন্ন প্লাটফর্মে একটা ন্যাশনাল আইডি কার্ড বা NID Card দিয়ে একটাই একাউন্ট খোলা যায়।

তবে এক বিশেষ উপায় আছে যার মাধ্যমে একটি ভোটার আইডি কার্ড বা NID কার্ড দিয়ে একাধিক (মূলত দুইটি) বিকাশ একাউন্ট খুলতে পারবেন।

কেবল যে বিকাশ একাউন্ট খোলা যাবে তা নয়, উক্ত উপায়ের মাধ্যমে নগদ, রকেট সহ যাবতীয় সকল মোবাইল ব্যাংকিং প্লাটফর্মে একাউন্ট করা যাবে।

পুরোটা জুরে আছি আমি সেলিম এবং আপনি আছেন আমার Salim Speaking নামক ব্লগে। এখানে প্রতিনিয়ত নতুন সব ট্রিকস ও টেকনোলজিক্যাল সমস্যার সমাধান দিয়ে থাকি।

আর তারই ধারাবাহিকতায় আজকে জানাবো কিভাবে একটি NID কার্ড দিয়ে দুইটি বিকাশ একাউন্ট খোলা যায়। শুরু করা যাক…

একটি NID কার্ড দিয়ে দুইটি বিকাশ একাউন্ট

অফিসিয়াল নিয়ম অনুযায়ী, প্রতিটা গ্রাহক তার নিদিষ্ট NID কার্ড দিয়ে একটি বিকাশ / নগদ / রকেট একাউন্ট খুলতে পারবে।

তবে বিভিন্ন কারনবসত একাধিক একাউন্ট তৈরির প্রয়োজন হয়। তবে লিমিটেশনের কারনে একাধিক একাউন্ট খোলা সম্ভব হয় না।

এ কারনে উক্ত সমস্যার সমাধানে ও নিরাপদ উপায় খুজে বের করেছি যার মাধ্যমে দুইটা বিকাশ / নগদ / রকেট একাউন্ট খোলা যাবে কোনো ঝামেলা ছাড়াই।

তাই একাউন্ট লক হয়ে যাবে বা বন্ধ হয়ে যাবে এই ধরনের চিন্তা মাথায় আনার প্রয়োজন নেই। কারন উভয় একাউন্টের ক্ষেত্রেই একান্ত আপনার পরিচয় পত্রই প্রয়োজন হবে।

দুইটি বিকাশ / নগদ / রকেট একাউন্ট খোলার ক্ষেত্রে প্রথমটার নিয়ম সবারই জানা তাই সে সম্পর্কে আর বলছি না, শুধুমাত্র ২য় একাউন্ট খুলতে যা যা করতে হবে সেসব সম্পর্কে বিস্তারিত ইনফরমেশন তুলে ধরছি।

২য় একাউন্ট খুলতে কি কি প্রয়োজন হবে?

১. একটা NID কার্ড বা পরিচয় পত্র
২. উক্ত ব্যক্তির উপস্থিতি
৩. ইন্টারনেট সংযুক্ত মোবাইল ফোন
৪. বিকাশের / রকেট / নগদ মোবাইল অ্যাপ

জী হ্যা সেসকল জিনিস গুলোই যা প্রথমবার একাউন্ট করতে প্রয়োজন ছিলো। এবার জানুন এগুলোর মাধ্যমে কিভাবে একাউন্ট খুলবেন।

দুইটি বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

যেহেতু বিকাশ হচ্ছে মোবাইল ব্যাংকিং প্লাটফর্ম গুলোর মধ্যে অন্যতম তাই এটাকে কেন্দ্র করেই টিউটোরিয়ালটি উপস্থাপন করছি তবে অন্যান্য গুলোর ক্ষেত্রেও একই উপায় অবলম্বন করতে হবে

স্টেপ ১ : প্রথমে আপনার NID কার্ডটি হাতে নিন। এর পর পিছন সাইডে দেখবেন একটা Barcode দেয়া আছে। এবার একটা স্মার্ট দিয়ে Barcode টির ছবি তুলুন।

স্টেপ ২ : এরপর মোবাইলের ব্রাউজারে গিয়ে সার্চ করুন ” Online Barcode scanner ” সার্চে প্রথমে আসা ওয়েবসাইটে গিয়ে তোলা ছবিটা সাবমিট করুন।

এবং স্ক্যান হয়ে আসা ফলাফল কোড গুলো কপি করুন এবং নোটপেডে পেস্ট করে রাখুন। কোডটি কেমন হবে তা জানতে নিচের ছবিটি লক্ষ্য করুন।

Img 1

স্টেপ ৩ : এবার সাভাবিক নিয়ম মোতাবেক অ্যাপ থেকে নতুন একাউন্ট খোলার প্রসেস শুরু করুন। এক্ষেত্রে আপনার NID কার্ডের সামনে ও পিছনের পার্টের ছবি তুলতে বলা হবে।

ছবি সাবমিট করা হয়ে গেলে আপনার পুরো ইনফরমেশন দেখানো হবে চেক করার জন্য। এখানেই আপনার মেইন কাজটি করতে হবে।

খুব মনোযোগ দিন, আপনার ডিটেইলসের মধ্যে NID Number যেটা থাকবে সেটা মুছে ফেলুন বা রিমুভ করে দিন এবং সেই স্থানে কিছুক্ষন আগে কপি করে রাখা কোডটির প্রথমে <pin> Code Number </pin> থাকা কেবল ১৭ ডিজিটের নাম্বারটি কপি করুন এরপর সেটা অ্যাপ এ এসে NID number এর স্থানে বসিয়ে দিন।

এরপর সেভ করুন। এই পর্যায়ে আপনাকে সেল্ফি ক্যামেরা অন করে নিজের চেহারা দেখাতে বলা হবে ভেরিফিকেশন এর জন্য। উক্ত প্রসেস সম্পন্ন করুন and booomm.. আপনার একাউন্ট রেডি

এবার একাউন্টের পিক সেট করুন ও অ্যাপ থেকে একাউন্টে প্রবেশ করুন। হোক বিকাশ / নগদ / রকেট প্রসেস একই।

আপনার মূল কাজ হবে NID তে থাকা ডিজিট গুলো রিমুভ করে স্ক্যান করে পাওয়া ডিজিট গুলো বসিয়ে দেয়া। That’s it

তাহলে ইতিমধ্যে বুজেই গিয়েছেন উক্ত কাজে নেই কোনো চিটিং বা সিস্টেম নিয়ে ছেরছারি। আপনাকে ও আপনার NID চিহ্নিত করা যায় এমন দুইটা নাম্বার কোড দিয়েই দুইটা বিকাশ একাউন্ট করা সম্ভব।

ইতিকথা

তো এই ছিলো একটি NID কার্ড দিয়ে দুইটি বিকাশ / রকেট / নগদ একাউন্ট খোলা যায় সেই সম্পর্কে বিস্তারিত ইনফরমেশন।

বিঃদ্রঃ উক্ত বিষয় গুলো কেবল মাত্র জানার জন্যই। এই পদ্ধতি ব্যবহার করে একাধিক একাউন্ট খোলা যাবে এই বিষয়ে কোনো সন্দেহ নেই তবে বিকাশ সহ অনান্য প্লাটফর্ম গুলো প্রতিনিয়ত ভেরিফিকেশন এর মাধ্যমে সুরক্ষা যাচাই করে যায় ফলে আপনার একাউন্ট সাময়িক ভাবে বন্ধ হয়ে যেতে পারে। যদি বন্ধ হয় তাহলে সেটা পুনরায় ঠিক করতে কাস্টমার কেয়ারে যেতে হবে। আর তখন একটা এন আই ডি থেকে একাধিক একাউন্ট ব্যবহার করা যাবে না।

আশা রাখছি বিষয়টি শিক্ষনীয় ও উপকৃত অনুভব করাতে পেরেছি। Keep Supporting and connect with me on social media

Leave a Comment